সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছাড়লেন শচীন টেন্ডুলকার

0
34

করোনা থেকে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়ে বাড়ি ফিরলেন ভারতের সাবেক মাস্টার ব্লাস্টার ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকার। তবে নিজ বাসাতে আইসোলেশনে থাকবেন টেন্ডুলকার।

হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফেরার ফেরার কথা নিজেই টুইট করে জানিয়েছেন টেন্ডুলকার। টুইটারে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক টেন্ডুলকার জানান, ‘হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরলাম। আপাতত আইসোলেশনে থাকবো। পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার প্রক্রিয়া চলবে। আমাকে শুভেচ্ছা জানানো এবং প্রার্থনা করার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ। যে চিকিৎসাকর্মীরা আমার যতœ নিয়েছেন, তাদের ধন্যবাদ। এরা এই কঠিন পরিস্থিতিতে গত এক বছর ধরে অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন।’

গত ২৭ মার্চ করোনায় আক্রান্ত হন টেন্ডুলকার। এরপর শরীরে করোনাভাইরাসের উপসর্গ বেড়ে যাওয়ায় ২ এপ্রিল হাসপাতালে ভর্তি হন টেন্ডুলকার। দিনটি ছিলো ২০১১ সালে ভারতের বিশ্বকাপ জয়ের দশ বছর পূর্তি। বিশ্বকাপ জয়ের দলে ছিলেন টেন্ডুলকার।
সেদিন টুইট করে হাসপাতালে ভর্তি খবর জানান টেন্ডুলকার, ‘আপনাদের সবার ভালবাসা ও প্রার্থনার জন্য অনেক ধন্যবাদ। চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে হাসাপাতালে ভর্তি হলাম। আশা করি, কিছু দিনের মধ্যে বাড়ি ফিরে আসবো। সবাই ভাল ও সুস্থ থাকবেন। আজকের দিনে ১০ বছর আগে ভারত বিশ্বকাপ জিতেছিলো। সকল ভারতীয় ও আমার বিশ্বকাপ জয়ী সতীর্থদের অভিনন্দন।’

ওয়ার্ল্ড সেফটি সিরিজে খেলতে গিয়েই করোনা আক্রান্ত হন টেন্ডুলকার। ঐ সিরিজের পর টেন্ডুলকারসহ ইউসুফ পাঠান-ইরফান পাঠান এবং বদ্রিনাথও করোনায় আক্রান্ত হন।