চার দলের ‘লা লিগা’ কাড়াকাড়ি!

0
23

লা-লিগা শেষদিকে এসে যেনো জমে ক্ষীর। লিগ জয় করার সম্ভাবনায় আছে দুই মাদ্রিদ সাথে বার্সেলোনা। ভুলে থাকা যাবে না সেভিয়াকেও।

এমনই সব সমীকরণ মাথায় নিয়ে ক্রুস মড্রিচ কে বিশ্রাম দিয়ে তরুণ ব্লাংকো আর অনেকদিন পর শুরুর একাদশে হ্যাজার্ড কে রেখে ম্যাচ শুরু করে রিয়াল মাদ্রিদ।

শুরু থেকেই আক্রমণ বাড়াতে থাকে জিদানের শিষ্যরা। ৪ মিনিটেই রিয়ালের আক্রমণ। যদিও তা কাজে লাগে নি কোনো। এর কিছু পরেই পাল্টা আক্রমণে নামে এলচে। যদিও কর্তোয়ার হাত টপকে বল জালে জড়াতে পারে নি। ১৫ আর ১৬ পরপর দুই মিনিটে গোলমুখে জোড়া শট মারে হ্যাজার্ড আর আসেন্সিও। যদিও বা তা বাইরে দিয়েই চলে যায়। ২৮ মিনিটে মিলিতাও দুরন্ত হেড সেভ করলে প্রথমার্ধে ০-০ এর ড্র নিয়েই ডাগ-আউটে ফিরে দুই দল।

দ্বিতীয়ার্ধে শুরুতেই আক্রমণ করে এলচে। এবারও ত্রাতার ভূমিকায় কর্তোয়া। ৭০ মিনিটে হ্যাজার্ড কে উঠিয়ে ইস্কোকে নামায় জিদান। ম্যাচের চেহারা যেনো হঠাৎ করেই পালটে যায়। অনেকদিন পর মাঠে পুরোনো ইস্কোকে দেখা যায়। ৭৬ মিনিটে তার কর্নার থেকেই হেডে বল জালে জড়ান মিলিতাও। ফলে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় মাদ্রিদ। ৪ মিনিট পরে আবারও গোল। এবার বেনজেমার এসিস্ট থেকে ক্যাসেমারোর লক্ষ্যভেদ। শেষ পর্যন্ত ২-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে লস ব্লাঙ্কোসরা।

এর ফলে ৩৪ ম্যাচ শেষে ৭৪ পয়েন্ট নিয়ে লা-লিগার টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে আছে রিয়াল মাদ্রিদ। সমান ম্যাচ খেলে ৭৬ পয়েন্ট নিয়ে সবার উপরে আছে এটলেটিকো মাদ্রিদ। আর এক ম্যাচ কম খেলা বার্সেলোনা ৩৩ ম্যাচ শেষে ৭১ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তৃতীয় স্থানে রয়েছে। দিন যতই গড়াচ্ছে লা-লিগার লড়াইও জমছে বেশ।