দর্শক শুন্য মাঠে অনুষ্ঠিত হবে বঙ্গবন্ধু টি-২০ কাপ

0
8

দর্শক শুন্য মাঠে অনুষ্ঠিত হবে আসন্ন বঙ্গবন্ধু টি-২০ কাপ। করোনা ভাইরাস সংক্রমন ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

শুক্রবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে নেপালের বিপক্ষে অনুষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু ফিফা আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ সিরিজের প্রথম ম্যাচে কয়েক হাজার দর্শকের উপস্থিতি ঘটেছিল। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের ভাষ্যমতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ওই দিন ৮ হাজার দর্শক স্টেডিয়ামে উপস্থিত হয়েছিল।

তবে সেই পথে হাটতে রাজি নয় বিসিবি। বোর্ড পরিচালক ও মিডিয়া কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস বলেন, বঙ্গবন্ধু টি-২০ কাপের ম্যাচ চলাকালে স্টেডিয়ামে দর্শক প্রবেশের অনুমতি দেয়া হবে না।
করোনা মহামারির করণে গত মার্চে দেশের সব ক্রীড়া কার্যক্রম বন্ধ হয়ে যায়। তবে গত সেপ্টেম্বরে মাঠে গড়ায় ক্রিকেট। আর ফুটবল শুরু হয়েছে নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে। কোভিড মাহামারির সময় শুক্রবারের ম্যাচটি বাংলাদেশের প্রথম আন্তর্জাতিক ফুটবল ম্যাচ।

জালাল ইউনুস সাংবাদিকদের বলেন, “আমি জানি বিষয়টা আবেগের। দীর্ঘদিন পর দেশে প্রথম ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়েছে। আর দর্শকরাও তা উপভোগ করতে এসেছিল। তবে অন্যদের স্বাস্থ্য ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে আমরা দর্শকদের মাঠে প্রবেশের অনুমতি দিচ্ছিনা। স্টেডিয়াম দর্শক শুন্য রাখারই পরিকল্পনা নিয়েছি আমরা।”

ওই একই কারণেই উদ্বোধনী অনুষ্ঠ্ন আয়োজন থেকেও বিরত থাকছে বিসিবি। ইউনুস বলেন,‘ বর্তমান পরিস্থিতিতে আমরা কোন আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনও করছি না।’ জৈব সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে। এর আওতায় থাকবে টুর্নামেন্টে অংশগ্রহনকারী ৫ দলের ৮০ জন ক্রিকেটার সহ সর্বমোট ১৫০ জন ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি।

বিসিবি কর্মকর্তা বলেন, “২০ নভেম্বর হোটেলে চেক ইন করবে ক্রিকেটাররা। এরপর থেকেই তারা জৈব সুরক্ষা বলয়ের আওতায় চলে আসবে। এর আগে দলগুলো নিজ উদ্যোগে অনুশীলন করবে।”

সুরক্ষা বলয়ে প্রবেশের আগে খেলোয়াড়, কর্মকর্তা ও হোটেল স্টাফদের কোভিড-১৯ পরীক্ষা করানো হবে। আগামী ২৪ নভেম্বর মাঠে গড়াবে বঙ্গবন্ধু টি-২০ ক্রিকেটের ম্যাচ। টুর্নামেন্টের সবগুলো ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে মিরপুরের শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।