কঠোর লক ডাউনেও বন্ধ হচ্ছেনা ইংল্যান্ডের ফুটবল

0
8

বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন নতুন করে ইংল্যান্ডে আবারো ছয় সপ্তাহের জন্য কঠোর লক ডাউনের ঘোষণা দিয়েছেন। কিন্তু নতুন এই লক ডাউনে আপাতত বন্ধ হচ্ছেনা কোন ধরনের পেশাদার ক্রীড়ার আসর। দর্শকবিহীন স্টেডিয়ামে ইংল্যান্ড জুড়ে চলবে সব ধরনের ক্রীড়া আসর।

এর অর্থ হচ্ছে প্রিমিয়ার লিগ চালু রাখা নিয়ে যে শঙ্কা দেখা দিয়েছিল তা এখন কেটে গেছে। পাশাপাশি অন্যান্য ক্রীড়াগুলো নির্ধারিত সূচী অনুযায়ী চলতে থাকবে। এর আগে সোমবার স্কটল্যান্ডে যে ধরনের আইন প্রয়োগের ঘোষনা দেয়া হয়েছিল ইংল্যান্ডের ক্রীড়ার ক্ষেত্রেও তা বহাল থাকবে।

আজ মঙ্গলবার থেকে যুক্তরাজ্যে বসবাসকারী সকলকে ঘরের মধ্যে থাকতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে, স্কুলগুলো বন্ধ হয়ে গেছে। এর আগে সোমবার যুক্তরাজ্য জুড়ে ৫০ হাজারেরও বেশী কোভিড আক্রান্ত নতুন কেস ধরা পড়েছে। টানা সাতদিন যাবত যুক্তরাজ্যে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। ইংল্যান্ডে বসবাসকারীরা দিনে একবার ঘর থেকে বের হবার অনুমতি পাবে। জিম, টেনিস কোর্ট, গল্ফ কোর্স বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। প্রতিবন্ধীদের ঝুঁকি বেশী থাকায় তাদের জন্য আউটডোর গেমস বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। অপেশাদার ফুটবল ম্যাচ ও অনুশীলন নিষিদ্ধ করা হয়েছে। নারী এফএ কাপের প্রতিযোগিতা আপাতত স্থগিত করা হয়েছে।

সোমবার বৃটিশ প্রধানমন্ত্রীর লক ডাউন ঘোষনার পর ইংল্যান্ডের পেশাদার ফুটবলের ম্যাচগুলো নির্ধারিত সূচী অনুযায়ী এ সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। এর মধ্যে রয়েছে মঙ্গলবার ও বুধবার লিগ কাপের সেমিফাইনাল, এফএ কাপের তৃতীয় রাউন্ড। এছাড়া নারী সুপার লিগের কয়েকটি ম্যাচ, ইংলিশ ফুটবল লিগ ও ন্যাশনাল লিগ গেমের কিছু ম্যাচ এ সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। প্রিমিয়ার ১৫’র রাগবি ইউনিয়ন ম্যাচ ও ইংলশি প্রিমিয়ারশীপও আয়োজিত হবে।

ইতোমধ্যে ইএফএল’র শনিবারের সাতটি ম্যাচ ও মৌসুম জুড়ে প্রায় ৫২টি ম্যাচ করোনার কারনে স্থগিত করা হয়েছিল। ইংলিমশ প্রিমিয়ার লিগে এ পর্যন্ত চারটি ম্যাচ বাতিল করা হয়েছে।